বই মেলার স্টলে পর্ন তারকাদের নামে ব্যানার!

ভাষার মাসে দেশের বিভিন্ন স্থানে উৎসবমুখর পরিবেশে বইমেলা অনুষ্ঠিত হচ্ছে। এর ধারাবাহিকতায় টাঙ্গাইলের কালিহাতীতে তিনদিনব্যাপী বইমেলার উদ্বোধন করা হয়েছে। সেই বইমেলায় দু’জন পর্ন তারকার নামে একটি স্টলের ব্যানার টাঙানো হয়েছে। এ নিয়ে নিন্দার ঝড় ও তোলপার শুরু হয়েছে গোটা এলাকায়। পরিস্থিতি সামাল দিতে ওই স্টলের তিন মালিক শান্ত, রোকন ও মাহফিজকে আটক করে পুলিশে সোপর্দ করা হয়েছে। জানা যায়, আর্ন্তজাতিক মাতৃভাষা দিবস উপলক্ষে উপজেলা পরিষদ ও উপজেলা প্রশাসনের সহযোগিতায় তিনদিনব্যাপী বইমেলার আয়োজন করেছে কালিহাতী উপজেলা সাধারণ পাঠাগার কমিটি। কালিহাতী আর. এস. মডেল উচ্চ বিদ্যালয় মাঠে অনুষ্ঠিত হচ্ছে মেলাটি। গত সোমবার বিকালে উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মোসা: শাহীনা আক্তার উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে সভাপতিত্ব করেন। স্টলে এ ধরনের ব্যানার টাঙানোয় একুশের চেতনা ও মর্যাদা মারাত্মকভাবে ক্ষুণ্ন হয়েছে বলে মন্তব্য করেছেন ভাষা সৈনিকসহ সুশীল সমাজের প্রতিনিধিরা। বইমেলার ৩৯ নম্বর স্টলে ‘জনি সিন্স মিয়া খলিফা’ নামে একটি ব্যানার টাঙানো হয়। তখনই বিষয়টি নিয়ে গুঞ্জন শুরু হয়। পরে অনলাইনে যাচাই করে দেখা গেছে ‘জনি সিন্স’ ও ‘মিয়া খলিফা’ দু’জন পর্ন তারকার নাম। স্টলের নামকরণের ব্যানারটি দ্রুত বিভিন্ন সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে ভাইরাল হয়ে পড়েছে। এতে ব্যাপক সমালোচনা ও নিন্দার উঠেছে বিভিন্ন মহলে। কীভাবে একজন পর্ণ তারকার নামে স্টলে ব্যানার টাঙানো হলো এনিয়ে জনমনে প্রশ্ন দেখা দিয়েছে।
পরিস্থিতি সামাল দিতে সোমবার দুপুরে ওই ব্যানারটি নামিয়ে ফেলা হয়। একইসাথে স্টলের তিন মালিক শান্ত, রোকন ও মাহফিজকে আটক করে পুলিশে সোপর্দ করে প্রশাসন। ভাষা সৈনিক ও বীর মুক্তিযোদ্ধা কবি বুলবুল খান মাহবুব বলেন, একুশ আমাদের চেতনা। একুশের ভাষা আন্দোলনের পথ ধরেই আমরা স্বাধীনতা পেয়েছি। সেই একুশের বই মেলার স্টলে একজন পর্ন তারকার নামে ব্যানার টাঙানো অত্যন্ত দুঃখজনক ও নিন্দনীয়। এটা মোটেও মেনে নেয়া যায় না। এর দায় মেলা উদযাপন কমিটি এড়াতে পারে না। এ ব্যাপারে কালিহাতী উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা ও একুশে বই মেলার উদযাপন কমিটির আহ্বায়ক মোসা: শাহীনা আক্তার বলেন, রোকন নাম দিয়ে স্টল বরাদ্দ নিয়ে কীভাবে পর্ন তারকাদের নামে স্টলে ব্যানার টাঙানো হয়েছে সেটা স্টল বরাদ্দ উপ-কমিটির কাছে তদন্তপূর্বক প্রতিবেদন দিতে বলা হয়েছে। এ ঘটনায় স্টলের তিন মালিককে আটক করে পুলিশে সোপর্দ করা হয়েছে। একইসাথে সেই ব্যানার নামিয়ে স্টলের বরাদ্দ বাতিল করা হয়েছে। মঙ্গলবার সন্ধ্যা ৭টায় কালিহাতী থানার ওসি (তদন্ত) মনছুর আল আরিফ নয়া দিগন্তকে বলেন, আটককৃত তিনজনকে কালিহাতী থানায়ই রাখা হয়েছে। তাদের বিষয়ে ইউএনও ম্যাডামের সিদ্ধান্ত অনুযায়ী ব্যবস্থা নেয়া হবে।
Share on Google Plus

About Sadia Afroja

    Blogger Comment
    Facebook Comment

0 comments:

Post a Comment