৯০ রানে হারলো শ্রীলঙ্কা

থিসারা পেরেরা আত্রমণাত্মক ব্যাট করে লড়াইয়ের আভাস দিলেও তা হার এড়াতে যথেষ্ট হয়নি। মোস্তাফিজের আঘাতে বিদায়ের আগে এ অলরাউন্ডার ৩৫ বলে ৫৫ রান করেন। ২ ছক্কা আর চারটি চার মারেন তিনি। ৪৬ তম ওভারের প্রথম বলে  তার আউটের মধ্য দিয়ে শ্রীলঙ্কার ইনিংস থামে ২৩৪ রানে। পরাজয়ের ব্যবধানটা ৯০রান। এ জয়ে তিন ম্যাচ সিরিজে ১-০তে এগিয়ে গেল বাংলাদেশ। ২ শে মার্চ এ মাওেঠই হবে দ্বিতীয ওয়ানডে। মোস্তাফিজ ৩ উইকেট নেন ৫৬ রানে। এর আগে মাশরাফি, মিরাজের আঘাতে স্বাগতিকদের ব্যাটিং ধ্বস নামে।
=বাংলাদেশের ৩২৪ রানের জবাবে ব্যাট করতে নেমে চরম বিপর্যয়ে পড়ে শ্রীলঙ্কা। ১৫ রানের মাথায় দ্বিতীয় উইকেট পতনের পর অধিনায়ক থারাঙ্গা ও চান্দিমাল থিতু হওয়ার চেষ্টা করছিলেন। কিন্তু পেসার তাসকিন আহমেদের আঘাতে সে প্রচেষ্টা নস্যাৎ হয়ে যায়। কোন রান না দিয়েই তিনি তার প্রথম ওভারে থারাঙ্গাকে বিদায় করেন। অধিনায়ক মাশরাফি ক্যাচটি নেন। ১৪ ওভার শেষে শ্রীলঙ্কার সংগ্রহ ৩৯/৩। ১০ ওভারে সংগ্রহ ছিল ৩০/২।
স্পিনার মেহেদী হাসান মিরাজ ওয়ানডে অভিষেকেও উইকেটের দেখা পেলেন। ব্যাটিং করার সুযোগ না পেলেও এক প্রান্তে বোলিং ওপেনিং করেন তিনি। নিজের তৃতীয় আর দলের ষষ্ঠ ওভারের শেষ বলে উইকেট পান তিনি। ১৭ বলে ৪ রান করা কুশল মেন্ডিস তার বলে ক্যাচ দেন বদলি ফিল্ডার শুভাগত হোমের হাতে।
ইনিংসের মাত্র তৃতীয় বলেই আঘাত হানে বাংলাদেশ। লঙ্কান ওপেনার গুনাতিলাকাকে এলবিডব্লিউর ফাঁদে ফেলেন বাংলাদেশ অধিনায়ক মাশরাফি বিন মুর্তজা। এতে রানের খাতা খোলার আগেই উইকেট খোয়ায় শ্রীলঙ্কা। আর বাংলাদেশী পেসার মাশরাফি নেন মেডেন উইকেট। এর আগে স্বাগতিক শ্রীলঙ্কাকে ৩২৫ রানের টার্গেট দেয় বাংলাদেশ।  ওয়ানডে ক্যারিয়ারে অষ্টম সেঞ্চুরি হাঁকালেন তামিম ইকবাল। আর সাকিব আল হাসান হাঁকালেন ক্যারিয়ারের ৩৩তম অর্ধশতক। উইকেট দেয়ার আগে তামিম ইকবাল খেলেন ১২৭ রানের দারুণ ইনিংস। ১৪২ বলের ইনিংসে তামিম হাঁকান ১৫টি চার ও একটি ছক্কা।  সাকিব করেন ৭২ বলে ৭২ রান। চতুর্থ উইকেটে ১৪৪ রানের জুটি গড়েন তামিম-সাকিব। শেষ দিকে মোসাদ্দেক হোসেন ৯ বলে ২৪ ও মাহমুদুল্লাহ রিয়াদ ৬ বলে করেন ১১ রান। 
৩৭তম ওভারে ২০০ রান পূর্ণ হয় বাংলাদেশের । ৩৭ ওভার শেষে বাংলাদেশের সংগ্রহ ছিল ২০৪/৩।
চতুর্থ উইকেট জুটিতে দৃঢ়তা দেখালেন তামিম ইকবাল ও সাকিব আল হাসান। এতে বড় সংগ্রহের সম্ভাবনা উজ্জ্বল বাংলাদেশের। ৪২.২ ওভার শেষে বাংলাদেশের সংগ্রহ দাঁড়ায় ২৩১/৩-এ। এ সময় ১২৭ বলের ইনিংসে ১০০ রানে  রানে অপরাজিত ছিলেন তামিম ইকবাল। ইনিংসে তামি হাঁকান এক ডজন বাউন্ডারি। চতুর্থ উইকেটে শতরানের জুটি গড়েন  তামিম-সাকিব।
২১.৩তম ওভারে কভারে অধিনায়ক উপুল থারাঙ্গার অসাধারণ এক ক্যাচে উইকেট দিলেন সাব্বির রহমান। আর ২২.১তম ওভারে  ব্যক্তিগত ১ রানে উইকেট খোয়ালেন মুশফিকুর রহীম। এর আগে  ব্যাট হাতে অর্ধশতক পূর্ণ করেন সাব্বির। আর ১৯তম ওভারে দলীয় ১০০ রান পূর্ণ হয় বাংলাদেশের। ২২.১ ওভার শেষে বাংলাদেশের সংগ্রহ দাঁড়ায় ১২০/৩-এ।  এ সময় ৪১ রানে অপরাজিত ছিলেন ওপেনার তামিম ইকবাল। ৫৬ বলের ৫৪ রানের ইনিংসে সাব্বির রহমান হাঁকান ১০টি বাউন্ডারি।  শ্রীলঙ্কার বিপক্ষে সিরিজের প্রথম ওয়ানডেতে টস হেরে ব্যাটিংয়ে যায় বাংলাদেশ। ডাম্বুলার রণগিরি স্টেডিয়ামে টস জিতে সফরকারীদেরকে ব্যাটিংয়ের  আমন্ত্রণ জানান শ্রীলঙ্কার অধিনায়ক উপুল থারাঙ্গা। দলীয় ২৯ রানে উইকেট খোয়ান সদ্য টেস্ট সিরিজে বাংলাদেশের সফল ব্যাটসম্যান সৌম্য সরকার। তবে লঙ্কান বোলারদের শাসনে রাখেন তামিম ইকবাল ও  সাব্বির রহমান । দ্বিতীয় উইকেটে ওয়ানডে অভিষেক হলো বাংলাদেশের তরুণ অলরাউন্ডার মেহেদী  হাসান মিরাজের।
আগে ব্যাট করা বাংলাদেশের সংগ্রহ ৮ ওভারে ১ উইকেট হারিয়ে ৫০ রান। তামিম ইকবাল ১৯ ও সাব্বির রহমান ১৬ রানে অপরাজিত। সৌম্য সরকার ১৩ বলে ১০ রানে ফিরেছেন।
বাংলাদেশ একাদশ
তামিম ইকবাল. সৌম্য সরকার, সাব্বির রহমান, মুশফিকুর রহিম, সাকিব আল হাসান, মাহমুদুল্লাহ, মোসাদ্দেক হোসেন, মেহেদি হাসান মিরাজ, মাশরাফি বিন মুর্তজা, তাসকিন আহমেদ ও মোস্তাফিজুর রহমান।
Share on Google Plus

About বাংলা খবর

    Blogger Comment
    Facebook Comment

0 comments:

Post a Comment