যাত্রাবাড়ীতে সিলিন্ডার বিস্ফোরণে নিহত ২

রাজধানীর যাত্রাবাড়ীতে বেলুনে গ্যাস ভরার সময় সিলিন্ডার বিস্ফোরিত হয়ে দু’জন নিহত ও দু’জন আহত হয়েছেন। রোববার বেলা ১১টার দিকে শেখদি বটতলা ঘটিবাড়ি এলাকার একটি টিনশেড বাসায় এ দুর্ঘটনা ঘটে। দুর্ঘটনার পর থেকে বেলুন ব্যবসায়ী আনিস পলাতক রয়েছে বলে জানায় পুলিশ। নিহত দু’জন হলেন- হবিগঞ্জের লাখাই উপজেলার মো. নাসিরের মেয়ে ঝুনু (২০) ও একই এলাকার ইসমাইলের ছেলে সাইকুল (২৮)। আহতরা হলেন- বেলুন ব্যবসায়ী লাখাই উপজেলার আনিসের ছেলে ওলিউল্লাহ (১৮) ও একই এলাকার একাম হোসেন (১৪)। যাত্রাবাড়ী থানার ওসি আনিসুর রহমান যুগান্তরকে বলেন, আনিস তার ছেলেসহ চারজনকে নিয়ে ওই বাসায় থেকে বেলুনের ব্যবসা করতেন। গ্রন্থমেলায় বিক্রির জন্য বেলুনে গ্যাস ভরে প্রস্তুত করার সময় সিলিন্ডার বিস্ফোরণ হয়। এতে দু’জন মারা গেছেন। আহত হয়েছেন আরও দু’জন। যাত্রাবাড়ী থানার এসআই আবদুল আওয়াল যুগান্তরকে বলেন, ঘটনার পর আহত দু’জনকে নিয়ে মালিক আনিস পালিয়েছে। তারা কোন হাসপাতালে ভর্তি হয়েছে, জানা যায়নি। অসতর্কতার কারণে এ দুর্ঘটনা ঘটেছে।
গ্যাস সিলিন্ডার নিয়মিত পরীক্ষা-নিরীক্ষা করতে হয়। সেটা না করায় এ দুর্ঘটনা। এর দায় মালিক এড়াতে পারে না। তিনি বলেন, নিহতদের লাশ ময়নাতদন্তের জন্য ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে। স্বজনদের খবর দেয়া হয়েছে। তারা এলে এ বিষয়ে মামলা হবে বলে জানান তিনি। প্রত্যক্ষদর্শী মতিউর রহমান নামে স্থানীয় এক বাসিন্দা যুগান্তরকে বলেন, বেলা ১১টার দিকে ভূমিকম্পের মতো বাসাটি কেঁপে উঠে। গিয়ে দেখি ঘটনাস্থলেই একজনের শরীর খণ্ড খণ্ড হয়ে আছে। এছাড়া বিস্ফোরণে টিনশেড বাসা ভেদ করে অন্য জায়গায় লাশের অঙ্গপ্রত্যঙ্গ ছড়িয়ে পড়ে। প্রতিবেশী দেবব্রত সরকার দেবু যুগান্তরকে বলেন, নিহত একজনের শরীর প্রায় ২০টি খণ্ড হয়েছে। একজনের মাথার অংশ পাওয়া যায়নি। বাসার বিভিন্ন স্থান থেকে তার শরীরের বিভিন্ন অংশ সংগ্রহ করা হয়েছে। ঘটনাস্থলে গিয়ে দেখা গেছে, সিলিন্ডার বিস্ফোরণের পর সেমিপাকা ওই বাসার দুটি কক্ষের টিনের ছাদ উড়ে গেছে। সবকিছু এলোমেলোভাবে পড়ে আছে। টিন, ফ্যান ও সিলিংয়ে ছোপ ছোপ রক্তের দাগ। সিলিংয়ের লোহার সঙ্গে শরীরের চামড়া ও বিভিন্ন অংশ লেগে আছে।
Share on Google Plus

About Sadia Afroza

    Blogger Comment
    Facebook Comment

0 comments:

Post a Comment